শিক্ষাবিদ ইনাম চৌধুরীর মৃত্যুতে প্রগতিশীল রাজনৈতিক দল সমূহের শোক

প্রকাশিত: ৮:১২ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৬, ২০২১

শিক্ষাবিদ ইনাম চৌধুরীর মৃত্যুতে প্রগতিশীল রাজনৈতিক দল সমূহের শোক

সানডেসিলেটঃ সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এমাদ উল্লাহ শহীদুল ইসলাম শাহীনের বড় ভাই সাবেক ছাত্রনেতা, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও কলামিস্ট এবং ইনামুল্লাহ সাইদুল ইসলাম (ইনাম চৌধুরী)’র মৃত্যুতে সিলেট জেলা বাম জোট ও প্রগতিশীল রাজনৈতিক দল সমূহের নেতৃবৃন্দ শোক জানিয়েছেন।

 

সোমবার (১৬ আগস্ট ) এক যুক্ত বিবৃতিতে প্রগতিশীল রাজনৈতিক দল সমূহের নেতৃবৃন্দ গভীর শোক জানিয়ে ইনাম চৌধুরী’র পরিবারের সদস্যসদের প্রতি সমবেদনা জানান।

 

সিলেটের প্রগতিশীল রাজনৈতিক দল সমূহের পক্ষে শোক জানান, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ, সিপিবি সিলেট জেলার সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট বেদানন্দ ভট্টাচার্য সিলেট জেলা জাসদ সভাপতি লোকমান আহমদ, বাসদ (মার্ক্সবাদী) আহ্বায়ক উজ্জল রায়, ওর্য়ার্কস পার্টি সভাপতি সিকন্দর আলী, বাসদ সমন্বয়ক আবু জাফর, ওয়ার্কার্স পার্টি (মার্ক্সবাদী) সমন্বয়ক সিরাজ আহমদ,  জেলা জাসদ সাধারণ সম্পাদক কে.এ কিবরিয়া, সিপিবি সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আনোয়ার হোসেন সুমন, গণতন্ত্রী পার্টি সাধারণ সম্পাদক জুনেদুর রহমান চৌধুরী, সাম্যবাদী আন্দোলন এর সমন্বয়ক সুশান্ত সিনহা সূমন, সিপিবি যুগ্ম সম্পাদক খায়রুল হাসান, বাসদ (মার্ক্সবাদী) নেতা এডভোকেট হুমায়ুন রশীদ সোয়েব, বাসদ নেতা প্রণব জ্যোতি পাল , সাম্যবাদী আন্দোলনের নেতা এডভোকেট রনেনন সরকার রনি প্রমুখ।

 

বাম জোটের শোক:   বাম গণতান্ত্রিক জোট সিলেট জেলা শাখার নেতৃবৃন্দ এক যুক্ত বিবৃতিতে গভীর শোক জানিয়ে ইনাম চৌধুরী’র পরিবারের সদস্যসদের প্রতি সমবেদনা জানান।  বাম গণতান্ত্রিক জোট সিলেট জেলা পরিচালনা পরিষদের সমন্বয়ক বাসদ (মার্ক্সবাদী) আহ্বায়ক উজ্জল রায়, বাসদ সমন্বয়ক আবু জাফর, সিপিবি সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আনোয়ার হোসেন সুমন, বাসদ (মার্ক্সবাদী) নেতা এডভোকেট হুমায়ুন রশীদ সোয়েব ও বাসদ নেতা প্রণব জ্যোতি পাল  যুক্ত বিবৃতিতে এই শোক জানান এবং ইনাম চৌধুরী’র পরিবারের সদস্যসদের প্রতি সমবেদনা জানান।

উল্লেখ্য, ইনামুল্লাহ সাইদুল ইসলাম (ইনাম চৌধুরী) সোমবার (১৬ আগস্ট ২০২১) ভোর সাড়ে পাঁচটায় সিলেট নগরীর ওয়েসিস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। তিনি দূরারোগ্য ব্যাধিতে ভুগছিলেন। তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে লাইফসাপোর্টে নেয়া হয়। তিনি ১৫ দিনেরও বেশি লাইফ সাপোর্টে ছিলেন।

শিক্ষাবিদ মইনুল ইসলাম চৌধুরীর ছেলে ইনাম চৌধুরী ১৯৫৪ সালের ১২ জুন সিলেটে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৬৯ খ্রিষ্টাব্দে সিলেট সরকারি পাইলট হাইস্কুল থেকে এসএসসি, ১৯৭২ খ্রিষ্টাব্দে সিলেট সরকারি কলেজ (বর্তমান এমসি কলেজ) থেকে এইচএসসি এবং ১৯৭৪ খ্রিষ্টাব্দে থেকে বিএ পাশ করেন। সেই বছর অধ্যাপক আবুল ফজল চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের দায়িত্ব নেবার পর নকল প্রতিরোধে পরীক্ষায় খুব কড়াকড়ি আরোপ করায় স্নাতক পর্যায়ে পাশের হার ছিল শতকরা ৩ জন। সেই বছর সিলেট এমসি কলেজ থেকে ডিগ্রি পরীক্ষায় একজন বা দুজন পাশ করেছিলেন এবং এর মধ্যে ইনাম চৌধুরী ছিলেন অন্যতম। তিনি ইংরেজি ভাষা ও ব্যাকরণে খুবই দক্ষ ছিলেন। সিলেট ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজে শিক্ষকতার মাধ্যমে তার কর্মজীবন শুরু হয়। তিনি পরবর্তীতে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকতা করেন এবং সবশেষে ওসমান আইডিয়েল স্কুলের প্রিন্সিপাল হিসেবে অবসর গ্রহণ করেন।

ইনাম চৌধুরী ছাত্র জীবনে বিপ্লবী ছাত্র ইউনিয়নের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত ছিলেন। তিনি সিলেটের বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় নিয়মিত কলাম লেখতেন এবং কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদের সাহিত্য আসরে নিয়মিত অংশগ্রহণ করে আলোচনায় অংশ নিতেন। তার একমাত্র কন্যা রাগীব আলী মেডিকেল কলেজের গাইনী ডা.নাতিয়া রাহনুমা ।

তিন ভাই, এক বোনের মধ্যে সবার বড় ইনাম চৌধুরীর ছোট ভাই সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি ও সিলেট স্টেশন ক্লাবের সাবেক প্রেসিডেন্ট এমাদ উল্লাহ শহিদুল ইসলাম শাহীন।

ইনাম চৌধুরীর নামাজে জানাজা আজ বাদ জোহর দরগাহ-ই-হযরত শাহজালাল (র.) মসজিদে অনুষ্ঠিত হয়। পরে তাকে মসজিদ সংলগ্ন কবরস্থানে দাফন করা হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ