শামসুদ্দিনের নার্সিং কর্মকর্তাকে মানিকপীরে দাফন

প্রকাশিত: ৩:৪৯ অপরাহ্ণ, মে ৩০, ২০২০

শামসুদ্দিনের নার্সিং কর্মকর্তাকে মানিকপীরে দাফন

সানডে সিলেট ডেস্ক: শনিবার, ৩০ মে ২০২০ : সিলেটে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া ডা. শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের নার্সিং কর্মকর্তা রুহুল আমিনের দাফন নগরীর মানিকপীর টিলায় সম্পন্ন হয়েছে। শনিবার (৩১ মে) সকাল পৌনে ১১টায় শামসুদ্দিন হাসপাতাল ও সিটি করপোরেশন কর্তৃপক্ষের তত্ত্বাবধানে এবং ইসলামি ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে তার দাফন করা হয়। শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) সুশান্ত কুমার মহাপাত্র দাফনের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

 

শুক্রবার (২৯ মে) রাত সোয়া দশটার দিকে মারা যান করোনা আক্রান্ত ডা. শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালের নার্সিং কর্মকর্তা (ব্রাদার) রুহুল আমিন। তিনি বাংলাদেশে প্রথম ব্রাদার (নার্স) হিসেবে মারা গেলেন। সিলেটে শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে করোনা রোগীদের সেবা দিতে গিয়ে নিজেই ক্রান্ত হয়ে পড়েছিলেন নার্সিং কর্মকর্তা (ব্রাদার) রুহুল আমিন। নিজের কর্মস্থল শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে গত ২২ মে ভর্তি হন তিনি। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল মারা গেলেন রুহুল আমিন।

 

এর আগে শুক্রবার সন্ধ্যায় শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের আইসিইউতে স্থানান্তর করা হয়েছিলো তাকে। এ সময় রুহুল আমিনের শারীরিক অবস্থার অবনতির খবর পেয়ে হাসপাতালে ছুটে যান ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. ইউনুছুর রহমান, উপ-পরিচালক ডা. হিমাংশু লাল রায়, এনেস্থেসিয়া বিভাগের প্রধান ডা. ময়নুল হোসেন ডালিম, শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের আরএমও সুশান্ত কুমার মহাপাত্র ও একই হাসপাতালের সেবা তত্ত্বাবধায়ক নিহারী রাণী দাস। রুহুল আমিনের গ্রামের বাড়ি নরসিংদী জেলার মনোহরদী। তিনি চাকরির সুবাদে সিলেটের দরগাহ মহল্লায় পরিবার নিয়ে থাকতেন। মৃত্যুর সময় তিনি স্ত্রী ও এক সন্তান রেখে গেছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সর্বশেষ

ই-মেইল :Sundaysylhet@Gmail.Com
মোবাইল : ০১৭১১-৩৩৪২৪৩ / ০১৭৪০-৯১৫৪৫২ / ০১৭৪২-৩৪৬২৪৪
Designed by ওয়েব হোম বিডি