স্পেশাল

‘বিশ্বনাথ পৌরসভা’য় অন্তর্ভুক্তির দাবিতে মানববন্ধন

প্রকাশিত: ৬:২০ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৮, ২০২০

‘বিশ্বনাথ পৌরসভা’য় অন্তর্ভুক্তির দাবিতে মানববন্ধন

সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার প্রবেশদ্বারে অবস্থিত সদর ইউনিয়নের সকল গ্রামগুলোকে নব-গঠিত পৌরসভায় অন্তর্ভুক্তির দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার (১৮ নভেম্বর) সকালে পৌর শহরের বাসিয়া সেতুর উপর উপজেলার সদর ইউনিয়নের ৪, ৫, ৬ ও ৮নং ওয়ার্ডের ব্যানারে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।

মানববন্ধন কর্মসূচিতে বক্তারা বলেন, বিশ্বনাথ উপজেলার প্রবেশদ্বারে অবস্থিত সদর ইউনিয়নের গ্রামগুলোকে বাদ দিয়ে ৫-৬ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত অন্যান্য ইউনিয়নের গ্রামগুলোকে পৌরসভায় অন্তর্ভুক্তি করা হয়েছে। যা নিতান্তই একটি পরিকল্পিত ষড়যন্ত্র ও দু:খজনক ঘটনা। এটা কোনভাবেই মেনে নেয়া যায় না। তাই অনতি বিলম্বে সদর ইউনিয়নের ৪, ৫, ৬ ও ৮নং ওয়ার্ডের সকল গ্রামগুলোকে নব-গঠিত পৌরসভায় অন্তর্ভুক্তি করে পৌরসভার কার্যক্রম শুরু করতে হবে। তা না হলে এলাকাবাসী আইনি লড়াইসহ কঠোর আন্দোলনের ডাক দিবেন বলে হুশিয়ারি দেন।

আন্দোলনের সমন্বয়ক উত্তর ধর্মদা গ্রামের শেখ আজাদের সভাপতিত্বে এবং ধর্মদা গ্রামের সাহিদুল ইসলাম সাহিদ ও ভোগশাইল গ্রামের মোসাদ্দিক হোসেন সাজুলের যৌথ পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন সংগঠক শাহ আসাদুজ্জামান আসাদ, সিরাজুল ইসলাম সিরাজ, মহব্বত আলী জাহান, আলতাব হোসেন, বিভাংশু গুণ বিভু, সদর ইউনিয়ন পরিষদের ৮নং ওয়ার্ডের মেম্বার শাহনেওয়াজ চৌধুরী সেলিম, ৪নং ওয়ার্ডের মেম্বার শামীম আহমদ, ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার আব্দুল মুমিন মামুন, নতুন সিরাজপুর গ্রামের শানুর আলী জয়দু, মোহাম্মদপু গ্রামের আসাদুজ্জামান-নূর আসাদ, হিমিদপুর গ্রামের আমির আলী, বড়ইগাঁও গ্রামের ফজলুর রহমান, রজকপুর গ্রামের মনোহর হোসেন মুন্না, রুজেল আহমদ চৌধুরী, ভাটশালা গ্রামের ফজলু মিয়া, সরুয়ালা গ্রামের টিপু আলী, শাহজিরগাঁও গ্রামের ফয়জুল ইসলাম জয়, রাজ মোহাম্মদপুরের নাজিম উদ্দিন রাহিম, হিমিদপুর গ্রামের বাদশা মিয়া, আতিকুর রহমান, ব্যবসায়ী নজরুল ইসলাম আজাদ। মানববন্ধনের শুরুতে কোরআন তেলওয়াত করেন দন্ডপানিপুর গ্রামের আরকুম আলী।

মানববন্ধনে কর্মসূচিতে এলাকাবাসীর মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংগঠক ফারুক মিয়া, মোহাম্মদপুর গ্রামের মাসুক মিয়া, কল্যাণ ভাট গ্রামের আবদুল হালিম শিকদার, সাবসেন গ্রামের মাসুক মিয়া, নতুন সিরাজপুর গ্রামের কবির আহমদ, উত্তর ধর্মদা গ্রামের মাওলানা শেখ শাহিদুর রহমান, সরুয়ালার গ্রামের আব্দুর রূপ, সিরাজপুর গ্রামের আনছার আলী, রজকপুর গ্রামের ইলিয়াস আলী, পুরাণ সিরাজপুর গ্রামের মকরম আলী, আব্দুল হান্নান, বাওনপুর গ্রামের আয়ুব আলী বারী, ইলিমপুর গ্রামের শেখ ফজর রহমান, হিমিদপুর গ্রামের শাহেদ মিয়া, ফজলুর রহমান শিপন, মুহিব উদ্দিন সুজেদ, সাজ্জাদ আলী, উত্তর ধর্মদা গ্রামের শেখ সালাউদ্দিন, শেখ শিপন আহমদ, বাওনপুর গ্রামের আতিক আহমদ, তাতিকোনা গ্রামের আবুল বাশার, তানভীর আহমদ, রাজ মোহাম্মদপুর গ্রামের মনির আহমদ, মোহাম্মদপুর গ্রামের তাজুল ইসলাম, ফরহাদ মিয়া, ধর্মদার নজরুল ইসলাম, রজকপুর গ্রামের আতিকুর রহমান মুরাদ, শাহান মিয়া, আতাপুর গ্রামের আবুল কালাম, আব্দুল ওদুদ, আব্দুস শহীদ, নানু মিয়া, কাইয়া কাইড়’র আব্দুল আহাদ রকন, ধীতপুর গ্রামের সৈয়দ হোসেন, সরুয়ালার আব্দুর রূপ, ইমরুজ আহমদ, পশ্চিম শ্বাসরাম গ্রামের লাল মিয়া প্রমুখ আন্দোলনকারী ৪টি ওয়ার্ডের সর্বস্তরের জনসাধারণ।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ