বালাগঞ্জে ‘দেশরত্ন শেখ হাসিনা সেতু’ দ্রুত নির্মাণের দাবিতে মানবনবন্ধন

প্রকাশিত: ৮:৩৮ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২১

বালাগঞ্জে ‘দেশরত্ন শেখ হাসিনা সেতু’ দ্রুত নির্মাণের দাবিতে মানবনবন্ধন

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ সিলেটের বালাগঞ্জ উপজেলার বড়ভাঙ্গা নদীতে নির্মিতব্য ও  উপজেলার সদরের সাথে সংযোগকারী ‘দেশরত্ন শেখ হাসিনা সেতু’ দ্রুত নির্মানের  দাবিতে সোমবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১১ টায়  মানববন্ধন করেছে সেতু বাস্তবায়ন পরিষদের নামের একটি সংগঠন।

 

উপজেলার সদরের ডাকবাংলোস্থ বড়ভাঙ্গা নদীর পারে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে অংশ নেন বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষ।

 

মানববন্ধন বাস্তবায়ন পরিষদের সভাপতি মো. হারুন মিয়ার সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব সাংবাদিক আবুল কাশেম অফিকের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন- বালাগঞ্জ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুল মুনিম, দেওয়ান বাজার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নাজমুল আলম নজম, পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আমিরুল ইসলাম, সেতু বাস্তবায়ন পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক সাবেক ইউপি সদস্য মো. আশিক মিয়া, বালাগঞ্জ বাজার বণিক সমিতির সভাপতি মো. জুনেদ মিয়া, বালাগঞ্জ উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি রজত চন্দ্র দাস ভুলন, সাধারণ সম্পাদক জিল্লুর রহমান জিলু, আল ফালাহ সমাজকল্যাণ সংস্থা বালাগঞ্জ’র সভাপতি হুসাইন আহমদ মিসবাহ, সাংবাদিক জাগির হোসেন জাকির, সাংবাদিক তারেক আহমদ, ডা. পবিত্র রঞ্জন বণিক, নবীনগর ইসলাহুল মুসলিমীন যুব সংঘের সভাপতি এড. এমরান আহমদ, ইউপি সদস্য আহমদ আলী, সমাজকর্মী আজাদ পনির, লিয়াকত মিয়া, মাওলানা গিয়াস উদ্দিন নোমান, মাওলানা মনিরুল ইসলাম, হাফেজ জুনেদ আহমদ, সিরিয়া অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি লয়লুছ মিয়া, বালাগঞ্জ অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সহ-সভাপতি জামাল মিয়া প্রমুখ।

 

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, ২০১৮ সালে বালাগঞ্জ উপজেলার পরিষদের অর্থায়নে, দুইজন সংসদ সদস্যে উপস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রীর নামে যে সেতুর কার্যক্রম শুরু হয়েছিল, তার কাজ কেন বন্ধ হল?

 

প্রধানমন্ত্রী শে হাসিনার সুযোগ্য নেতৃত্বে সারা দেশে ব্যাপক উন্নয়ন হচ্ছে। কিন্ত আমরা বালাগঞ্জবাসী কেন সেই উন্নয়ন থেকে বঞ্চিত? দলমত নির্বিশেষে আমাদের বালাগঞ্জবাসীর প্রাণের দাবি হলো, যে কোন মূল্যে আমরা সেতুটির দ্রুত বাস্তবায়ন চাই।

 

বক্তারা আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নামে নির্মিত ‘দেশরত্ন শেখ হাসিনা সেতু’ টি দ্রুত সময়ে বাস্তবায়ন করতে সরকারের সংশিল্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি কামনা করেন। বক্তারা বলেন,  এই সেতুটি নির্মিত হলে উপজেলার সদরের সাথে বালাগঞ্জ সদর ইউনিয়নের একাংশ, পশ্চিম গৌরীপুর ও দেওয়ান বাজার ইউনিয়নের সরাসরি যোগাযোগ স্থাপিত হবে। বালাগঞ্জ ও পার্শ্ববর্তী রাজনগর উপজেলার মানুষ এই সেতু দিয়ে সুলতান পুর সড়কে সিলেটের সাথে স্বল্প সময় ও কম খরচে যোগাযোগ করতে পারবে। পাশাপাশি বালাগঞ্জসহ পার্শবর্তী বাজারের ব্যবসা বাণিজ্যে উন্নতি হবে, ফলে সরকারের রাজস্ব বৃদ্ধি পাবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ