নিরাপদ সড়কের দাবিতে রাজপথে জনপ্রতিনিধিরা

প্রকাশিত: ৬:২৪ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৮, ২০২১

নিরাপদ সড়কের দাবিতে রাজপথে জনপ্রতিনিধিরা

সিলেট শহরে নিরাপদ সড়কের দাবীতে বিশাল মানববন্ধনে বক্তারাঃ
দ্রুত বাইপাস সড়ক নির্মাণ ও ট্রাক চলাচল বন্ধ না হলে আন্দোলন গড়ে তোলা হবে

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ সিলেট নগরীতে বেড়ে চলেছে সড়কে মৃত্যুর ঘটনা। বিশেষ করে কত কয়েকদিন আগে পরপর তিনদিনে প্রাণ করে নেয় তিন যুবকের। ঘাতক ট্রাক বার বার দূর্ঘটনার পরও ট্রাক চলাচল বন্ধ হচ্ছে না। যার কারণে অকালে প্রাণ হারাচ্ছেন সাধারণ মানুষ। দীর্ঘদিন দরে নগরবাসী ট্রাক চলাচল বন্ধের দাবী জানিয়ে আন্দোলন করে আসছেও ট্রাফিক পুলিশের সহযোগিতায় নগরীতে প্রবেশ করছে ট্রাক। এলাকাবাসী সকাল ৬টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত ট্রাক চলাচল বন্ধের দাবী জানিয়ে আসলেও তা প্রতিফলন হচ্ছে না। প্রশাসন চাইলে নগরীর ভিতর দিয়ে ট্রাক চলাচল বন্ধ করা সম্ভব। এয়ারপোর্ট থেকে বাদাঘাট দিয়ে ট্রাক চলাচলের জন্য বাইপাস সড়ক নির্মাণে এলাকাবাসী দীর্ঘদিন থেকে দাবী জানিয়ে আসছে। সড়ক দূর্ঘটনায় আর যাতে কোনো মায়ের বুক খালি না হয় সেজন্য বাইপাস সড়ক নির্মাণ জরুরী। দ্রুত বাইপাস সড়ক নির্মাণ এবং ট্রাক চলাচল বন্ধ করার জন্য পররাষ্ট্রমন্ত্রী সিলেট-০১ আসনের এমপি ড. এ.কে আব্দুল মোমেনের প্রতি আহ্বান জানান।

নগরবাসী জানমালের নিরাপত্তা, স্বাভাবিক মৃত্যুর নিশ্চয়তা ও দূর্ঘটনা মুক্ত নিরাপদ সড়কের জন্য দ্রুত বাইপাস সড়কের দাবীতে সোমবার (১৮ জানুয়ারি) সকায় ১১টায় নগরীর চৌকিদেখী থেকে খাসদবী পর্যন্ত রাস্তার দুই পাশে নগরীর হাজার হাজার জনসাধারণ, সামাজিক সংগঠন এবং জনপ্রতিনিধদের অংশগ্রহনে স্মরণকালের সর্ববৃহৎ এক বিশাল মানবন্ধনে সভাপতির বক্তব্যে ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ফরহাদ চৌধুরী শামীম উপরোক্ত কাথাগুলো বলেন।

 

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে, সিলেট নগরীর নিরাপদ সড়ক চাই বাস্তবায়ন কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক ৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাবেক প্যানেল মেয়র রেজাউল হাসান কয়েস লোদী বলেন, জনগণের জান মালের নিরাপত্তার জন্য নগরীতে ট্রাক চলাচল বন্ধ করতে হবে। তাহলেই সড়ক দূর্ঘটনা প্রতিরোধ করা সম্ভব হবে। ৫নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর রেজওয়ান আহমদ বলেন, বেপরোয়া ট্রাক চালকদের কারণে প্রায় সময়ই ঘটছে দূর্ঘটনা । নগরীতে আর যেন সড়ক দূর্ঘটনা না ঘটে সেজন্য সকলকে সচেতন থাকতে হবে।

 

সিলেট নগরী নিরাপদ সড়ক চাই বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ফরহাদ চৌধুরী শামিমের সভাপতিত্বে ও বিশিষ্ট সমাজ সেবক হুমায়ুন আহমেদ মাসুকের পরিচালনায় অনুষ্টিত মানববন্ধনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেনসংরক্ষিত ৪, ৫, ৬ নং ওয়ার্ডের মহিলা কাউন্সিলর এডভোকেট কুলসুমা বেগম পপি, ৬নং ওয়ার্ডের সাবেক কমিশনার আবু নসর বকুল, এডভোকেট সাহারাজ আহমদ, বয়োজৈষ্ট মুরব্বী সমেদ মিয়া, লুৎফুর রহমান চৌধুরী, শহীদুল ইসলাম মামুন, কবির আহমদ ওভাব, জি.ডি রুমু, পুলিশ নির্যাতনে নিহত রায়হানের মা সালমা খাতুন, খন্দকার ফায়েকুজ্জামান, সোহরাব আহমদ পবলু, মাওলানা লিয়াকত উল্লাহ, শ্রমিক নেতা আবুল হোসেন খান, লুৎফুর রহমান, মাওলানা এনামুল হক জালালাবাদী, সাহেদ আহমদ চমন প্রমুখ।

 

মানববন্ধনে সিলেট নগরীর বিভিন্ন এলাকার সামাজিক সংগঠন একাত্বতা প্রকাশ করে যোগ দেন রংধুন সমাজ কল্যাণ সংস্থা, আর.এম.এস ক্রীড়া সংস্থা, সেতু বন্ধন সমাজ কল্যাণ সংস্থা, পুষ্পাঞ্জলি সংঘ, তেপান্তর সমাজ কল্যাণ সংস্থা, একতা যুব সংঘ, সৈয়দ মুগনী তরঙ্গ সমাজ কল্যাণ সংস্থা, পঞ্চদশ সমাজ কল্যাণ সংস্থা, উদয়ন তরুণ সংঘ, রায় হোসেন কলবাখানী সমাজ কল্যাণ সংস্থা, ৬নং সমাজ কল্যাণ সংস্থা, চাইল্ডহুড ফ্রেন্ডস চ্যারিটি, ৬নং সড়ক পূর্ব চৌকিদেখী সমাজ কল্যাণ সংস্থা, ব্লাড সোলজার সোসাইটি, স্বপ্ন পূরণ ব্লাড ফাইটার্স, আনোয়ার মতিন প্রী ক্যাডেট একাডেমী, শাহপরাণ প্রী ক্যাডেট একাডেমী, হেল্পিং হ্যান্ডস চ্যারিটি সংগঠনের প্রতিনিধিবৃন্দ বক্তব্য রাখেন এবং উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সমূহের সকল সদস্যবৃন্দ। এছাড়াও নগরীর গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, নারী, পুরুষ, যুব সমাজ, ছাত্র সমাজ সহ সর্বস্তরের জন সাধারণ উপস্থিত ছিলেন। মানববন্ধনের শুরুতে নগরীর বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন সমূহ মিছিল সহকারে যোগ দেন । মানববন্ধন শেষে মিডিয়াকে ধন্যবাদ জানান সিলেট নগরী নিরাপদ সড়ক চাই বাস্তবায়ন কমিটির নেতৃবৃন্দ। মাওলানা মাহমুদুল হাসানের কোরআন তেলাওয়াতের মধ্য দিয়ে মানববন্ধন শুরু হয়।

 

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ